ঈদে ছেলেদের সাজ


ঈদের দিন শুধুমাত্র মেয়েরাই সাজগোজ করবেন, তা কী হয়? এদিন সাজগোজের প্রয়োজন রয়েছে ছেলেদেরও। কারণ প্রত্যেকেই চান হাজার ব্যস্ততার মাঝেও দিনটি আনন্দের সাথে কাটাতে। নিজেকে পরিপাটি করে সাজাতে। অপরের সামনে নিজেকে যতটা সম্ভব গোছালোভাবে উপস্থাপন করতে। এজন্য ঈদের আগে থেকেই নিজের সাজ প্রস্তুতি গ্রহণ করুন।

ঈদের আগেই ছেলেদের যেসব প্রস্তুতি নেওয়া উচিত-

সব কিছু ঠিকঠাক আছে কিনা তা দেখে নিন

ঈদের অন্তত আগের দিন দেখে নিন আপনার পোশাক আশাক এবং তার সাথে মিলিয়ে অন্যান্য সকল আনুসাঙ্গিক ঠিক মতো হয়েছে কিনা। ধরুন ঈদের দিন নামাজ পরবেন। তার সাথে টুপি এবং জায়নামাজ রেখেছেন কিনা। আবার ঈদের দিন যে যে পোশাক পড়বেন এবং পোশাকের সাথে মিলিয়ে নানা এক্সেসরিজ যেমন সানগ্লাস, জুতো ইত্যাদি সব গছানো হয়েছে কিনা তাও একবার নজর বুলিয়ে নিন।

ঈদের দিনের ফ্রেশ লুকের জন্য কিছু কাজ

ঈদের আগেই চুল কেটে নিন। চুল কাটানোর ক্ষেত্রে নিজের চেহারার সঙ্গে মানানসই হয় এমন কাটিং বেছে নিন। ঈদের দিনটিতে একটু ভিন্নতা আনতে সেলুনে গিয়ে করিয়ে নিতে পারেন ফেসিয়াল।এতে ঈদের দিন ত্বক থাকবে ফ্রেশ। কাজ ও শপিংয়ের ব্যস্ততায় পড়ে যদি হাত-পায়ের নখ কাটার কথা ভুলে গিয়ে থাকেন তাহলে এই কাজটিও সেরে ফেলুন।

ঈদের দিন সকালে

ঈদের দিন সকালে নামাজ পড়ার জন্য আগে নিজেকে তৈরি করে নিন। এ দিন সকালে অনেকেই পাঞ্জাবি পরতে পছন্দ করেন। চাইলে পাঞ্জাবির সঙ্গে সাদা রঙের পায়জামাও পরতে পারেন। পাঞ্জাবির রঙটি একটু হালকা হলেই ভালো হয়। নামাজে যাওয়ার সময় সুগন্ধি ব্যবহার করতে পারেন। আবার চাইলে আতরও ব্যবহার করতে পারেন আপনি।

ঈদের দিন দুপুরে

দুপুর সময়টাতে রোদে অনেকেই বের হতে চান না। তাই নামাজ পরে এসে অনেকেই বাসায় থাকতেই বেশি পছন্দ করেন। আবার কেউ কেউ বন্ধুবান্ধবের সাথে ঘুরতে বেড়িয়ে পড়েন। এই সময়েও পরতে পারেন পাঞ্জাবি-পায়জামা। অথবা পাঞ্জাবির সাথে পরে নিন চুড়িদার কিংবা জিন্স। ইচ্ছে হলে ক্যাজুয়াল শার্ট-প্যান্টও পড়তে পারেন। উজ্জ্বল রঙের কাপড় এই সময়টায় বেশি মানাবে। পোশাকের সাথে মিলিয়ে চুল আঁচড়াতে পারেন এবং চুলে জেল দিয়ে স্টাইলও করতে পারেন।

ঈদের দিন রাতে

এই সময়টায় পাঞ্জাবির পরিবর্তে টি-শার্ট, কাজ্যুয়াল শার্টপ্যান্ট অথবা ফর্মাল লুকে থাকতে পারেন। কারণ রাতের লুকটা কিছুটা গর্জিয়াস হওয়ার প্রয়োজন রয়েছে। অথবা বন্ধুবান্ধবেরা একই ধাঁচের পোশাক পরে কাটিয়ে দিতে পারেন সময়টা।

Facebook Comments